১৬ তম শিক্ষক নিবন্ধন পরীক্ষার প্রশ্ন ও সম্পূর্ণ সঠিক সমাধান মিলিয়ে নিন এখান থেকে

১৬ তম শিক্ষক নিবন্ধন পরীক্ষার প্রশ্ন ও সম্পূর্ণ সঠিক সমাধান মিলিয়ে নিন এখান থেকে

16th NTRCA Exam Circular 2019: 16 NTRCA Circular 2019 by www.ntrca.teletalk.com.bd. NTRCA means Non-government Teachers Registration & Certification Authority. 16th NTRCA Exam Circular has been found here. All interested Peoples get the 16th NTRCA Exam Circular 2019 from here.

১৬ তম শিক্ষক নিবন্ধন পরীক্ষার স্কুল সমপর্যায়ের প্রশ্ন

বাংলা অংশের সমাধান

১। চলিত রীতির প্রবর্তক- প্রমথ চৌধুরী

২। পরাশ্রয়ী বর্ণ- ৩

৩। ষত্ব বিধানে – মাষ্টার

৪। দিব +লোক

৫। ন ত্ব খারে না- অগ্রনায়ক

৬। পুকুরে মাছ আছে- ঐকদেশীয় অধিকরন

৭। ক্রিয়া বা ধাতুর পর প্রত্যয় হয়ে কৃৎ প্রত্যায় হয়

৮। ভাবে সপ্তমী- চন্দ্রোদয়ে কুমুদিনি বিকশিত হয়

৯। সম্মুখ অগ্রসর হয়ে অভ্যর্থনা- প্রতুৎদগমন

১০। পেয়ারা- পর্তুগিজ

১১। তামার বিষ- অর্থের কু প্রভাব

১২। গুনহীনের ব্যর্থ আস্ফলন- অসারের তর্জন গর্জন

১৩। পরা – প্রারাভাব

১৪। বীণাপাণি- ব্যাধিকরণ বহুব্রহী

১৫।বাংলা বর্ণ মালার উৎস- ব্রাক্ষীলিপি

১৬। খ্রিস্টান – ইংরেজি + তৎসম

১৭। call it a day-পুনরায় শুরু করা

১৮। মরি মরি- উচ্ছাস

১৯। সম্বোধন এর পর কমা বসে

২০। book post- খোলা ডাক

২১। দেশি শব্দ- গঞ্জ

২২। উপমিত কর্মধারয়- কর পল্লব

২৩।উষ্ণীষ-পাগড়ি

২৪।নাটিকা- ক্ষুদ্রার্থে

২৫।শিরে সংক্রান্তি – আসন্ন বিপদ

#সাধারণ জ্ঞান অংশের সমাধান

১.বাংলার সর্বপ্রাচীন জনপদের নাম কি

—-পুন্ড্র

২.বাঙালি জাতির প্রধান অংশ কোন মূল জাতিগোষ্ঠীর অন্তর্ভুক্ত

—অষ্ট্রিক

৩.বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমানের ঐতিহাসিক ৬ দফা ঘোষণা করা হয় ১৯৬৬ সালের

—-ফেব্রুয়ারি মাসে

৪.সংগ্রাম ও প্রত্যাশা কি

—-বাংলাদেশের নৌবাহিনীর দুইটি যুদ্ধ জাহাজ

৫.AIDS রোগের জন্য নিচের কোন ভাইরাসটি দায়ী

—-HIV

৬.কোথায় প্রথম বিশ্ব নারী সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়

—-মেক্সিকো

৭.মুজিবনগর সরকারের রাষ্ট্রপতি ছিলেন

—-বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমান

৮.ইউনেস্কোর কততম সম্মেলনে ২১ শে ফেব্রুয়ারিকে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস হিসাবে ঘোষণা করা হয়

—-৩১ তম

৯.দুর্যোগ ব্যবস্থাপনায় সাফল্যের জন্য মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে কোন সংস্থা পুরস্কৃত করে

—IFRC

১০.বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট -১ এর উৎক্ষেপণ দ্বারা বাংলাদেশ বিশ্বের কততম স্যাটেলাইট দেশ হিসাবে আত্মপ্রকাশ করে

—-৫৭ তম

১১.২০১৯ সালের সার্ক সাহিত্য পুরস্কার লাভ করে কে

—-অধ্যাপক আনিসুজ্জামান

১২.বিশ্ব মানবাধিকার দিবস কবে

—-১০ ডিসেম্বর

১৩.SMS এর পূর্ণরূপ কি

—-SHORT MESSAGE SERVICE.

১৪.বিগ এপেল কোন শহরের নাম

—–নিউইয়র্ক

১৫.IMF এর সদর দফতর কোথায়

—-ওয়াশিংটন, ডি.সি

১৬.শ্রীলংকার মুদ্রার নাম কি

—- রুপি

১৭.বাংলাদেশের জাতীয় পতাকার ডিজাইনার কে

—-কামরুল হাসান

১৮.ইউনেস্কো বাংলাদেশের কোন গানকে মানবতার ধারক হিসাবে আখ্যায়িত করেন

—-বাউল গান

১৯.বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় প্রাকৃতিক মৎস প্রজনন কেন্দ্র কোনটি

—হালদা নদী

২০.নাগরিকের প্রধান কর্তব্য হলো

—-রাষ্ট্রের প্রতি অনুগত্য প্রকাশ করা

২১.প্রকৃতিতে সব চেয়ে বেশি পাওয়া যায় কোন ধাতু

—- অ্যালুমিনিয়াম

২২.গাড়ির ব্যাটারিতে কোন এসিড ব্যবহৃত হয়

—-H2SO4

২৩.ফোকেটিং কোন দেশের আইনসভা

—–ডেনমার্ক

২৪.বাণিজ্যিকভাবে মৌমাছি পালনকে কি বলে

—এপিকালচার

২৫.কোনটি স্থানীয় সরকার নয়

—পল্লী বিদ্যুৎ

ভুল হলে কারেকশন দিব সঠিকটা বলে দিয়েন প্লিজ১। বাংলা সাহিত্তের চলিত রীতির প্রবর্তক কে?

=উত্তরঃ ক. প্রমথ চৌধুরী

২।

=উত্তরঃ খ. ৩ টি

৩।

=উত্তরঃ

৪।

=উত্তরঃ ঘ.

৫।

=উত্তরঃ

৬।

=উত্তরঃ ঘ.

৭।

=উত্তরঃ গ.

৮।

=উত্তরঃ ক.

৯।

=উত্তরঃ ঘ. স্বাগতম।

১০।

=উত্তরঃ খ. পর্তুগীজ

১১।

=উত্তরঃ ক. অর্থের কুপ্রভাব

১২।

=উত্তরঃ গ.

১৩।

=উত্তরঃ গ.

১৪।

=উত্তরঃ খ, ঘ.

১৫।

=উত্তরঃ খ.

১৬।

=উত্তরঃ গ.

১৭।

=উত্তরঃ গ.

১৮।

=উত্তরঃ ঘ.

১৯।

=উত্তরঃ ঘ.

২০।

=উত্তরঃ খ.

২১।

=উত্তরঃ খ.

২২।

=উত্তরঃ খ.

২৩।

=উত্তরঃ

২৪।

=উত্তরঃ খ.

২৫।

=উত্তরঃ ক.

২৬।

=উত্তরঃ গ.

২৭।

=উত্তরঃ গ.

২৮।

=উত্তরঃ খ.

২৯।

=উত্তরঃ গ.

৩০।

=উত্তরঃ ক.

৩১।

=উত্তরঃ খ.

৩২।

=উত্তরঃ খ.

৩৩।

=উত্তরঃ ক.

৩৪।

=উত্তরঃ ঘ.

৩৫।

=উত্তরঃ ক.

৩৬।

=উত্তরঃ গ.

৩৭।

=উত্তরঃ ঘ.

৩৮।

=উত্তরঃ খ.

৩৯।

=উত্তরঃ ঘ.

৪০।

=উত্তরঃ ঘ.

৪১।

=উত্তরঃ খ.

৪২।

=উত্তরঃ গ.

৪৩।

=উত্তরঃ ঘ.

৪৪।

=উত্তরঃ ক.

৪৫।

=উত্তরঃ

৪৬।=

=উত্তরঃ

৪৭।

=উত্তরঃ ক.

৪৮।

=উত্তরঃ ঘ.

৪৯।

=উত্তরঃ খ.

৫০।

=উত্তরঃ গ.

৫১।

=উত্তরঃ

৫২।

=উত্তরঃ গ.

৫৩।

=উত্তরঃ গ.

৫৪।

=উত্তরঃ গ.

৫৫।

=উত্তরঃ খ.

৫৬।

=উত্তরঃ খ.

৫৭।

=উত্তরঃ ঘ.

৫৮।

=উত্তরঃ গ.

৫৯।

=উত্তরঃ

৬০।

=উত্তরঃ

৬১।

=উত্তরঃ গ.

৬২।

=উত্তরঃ

৬৩।

=উত্তরঃ ক.

৬৪।

=উত্তরঃ

৬৫।

=উত্তরঃ

৬৬।

=উত্তরঃ গ.

৬৭।

=উত্তরঃ ক.

৬৮।

=উত্তরঃ গ.

৬৯।

=উত্তরঃ খ.

৭০।

=উত্তরঃ ক.

৭১।

=উত্তরঃ ঘ.

৭২।

=উত্তরঃ ঘ.

৭৩।

=উত্তরঃ খ.

৭৪।

=উত্তরঃ গ.

৭৫।

=উত্তরঃ খ.

৭৬।

=উত্তরঃ ক.

৭৭।

=উত্তরঃ ঘ.

৭৮।

=উত্তরঃ খ.

৭৯।

=উত্তরঃ গ.

৮০।

=উত্তরঃ গ.

৮১।

=উত্তরঃ গ.

৮২।

=উত্তরঃ ক.

৮৩।

=উত্তরঃ খ.

৮৪।

=উত্তরঃ

৮৫।

=উত্তরঃ গ.

৮৬।

=উত্তরঃ গ.

৮৭।

=উত্তরঃ গ.

৮৮।

=উত্তরঃ ক.

৮৯।

=উত্তরঃ গ.

৯০।

=উত্তরঃ ক.

৯১।

=উত্তরঃ খ.

৯২।

=উত্তরঃ খ.

৯৩।

=উত্তরঃ খ.

৯৪।

=উত্তরঃ ক.

৯৫।

=উত্তরঃ ঘ.

৯৬।

=উত্তরঃ ক.

৯৭।

=উত্তরঃ গ.

৯৮।

=উত্তরঃ ঘ.

৯৯।

=উত্তরঃ খ.

১০০।

=উত্তরঃ খ.

সম্পূর্ণ সমাধানের কাজ চলছে।। কিছুক্ষনের মধ্যে এখানে দেওয়া হবে!! সাথেই থাকুন…
১৬ তম শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষার সাজেশন নিয়ে আজকে আলোচনা করা হবে। ১৬তম শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষার তারিখ ৩০ আগষ্ট ২০১৯। যদিও ১৫ তম এর শিক্ষক নিয়োগ কার্যক্রম এখনো শেষ হয়নি কিন্তু সামনেই ১৬ তম এর প্রিলিমিনারি পরীক্ষা।
যারা ১৬ তম শিক্ষক নিবন্ধন পরীক্ষা দিবেন তারা কিভাবে প্রস্তুতি নিবেন আজ তা নিয়ে লিখছি।

এই পরীক্ষার প্রিলিমিনারির মোট নম্বর ১০০, এর মধ্যে ৪০% পেলে পাশ যদিও আসলেই ৪০% মার্কস

পেলে পাস করায় কিনা এটা নিয়ে অনেক অভিযোগ রয়েছে। যা হোক প্রিলিমিনারি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হলে আপনাকে লিখিত পরীক্ষার জন্য ডাকা হবে। এজন্য প্রিলি পাসের পর কিছু ডকুমেন্টস পাঠাতে হবে। লিখিত পাস করলে আপনকে ভাইভার জন্য ডাকা হবে। ভাইভায় পাস করলে জাতীয় মেধায় আপনার পজিশন ও পরবর্তীতে আবেদনের প্রেক্ষিতে আপনাকে নিয়োগ দেওয়া হবে।

১৬ তম শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষার সাজেশন ২০১৯

১৬ তম শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষার সাজেশন ২০১৯]

মোট ১০০ টি নৈর্ব্যক্তিক প্রশ্ন থাকবে। প্রতিটি প্রশ্নের মান ১।

প্রতিটি ভুল উত্তরের জন্য ০.৫০ নম্বর কাটা যাবে। অর্থাৎ দুইটি উত্তর ভুল হলেই প্রাপ্ত নম্বর থেকে ১ নম্বর কাটা যাবে।
আপনাকে প্রতিটি বিষয়ের জন্যই আলাদাভাবে প্রস্তুতি নিতে হবে। তাই প্রস্তুতি নিতে হবে ভালভাবে। কোন অবহেলা করা যাবেনা। কারন আপনাকে কয়েক লক্ষ প্রার্থীর সাথে প্রতিযোগিতা করতে হবে আর একটি চাকরির সাথে আপনার জীবন ও ভবিষ্যৎ জড়িত।

কি কি পড়বেন ও কিভাবে পড়বেন-
বাংলাঃ
প্রথমেই আসি বাংলা নিয়ে। বাংলা অংশে ব্যাকরণের ওপর বেশি জোর দিতে হবে। অষ্টম ও নবম-দশম শ্রেণির বোর্ড প্রণীত ব্যাকরণ বইয়ের সব অধ্যায় উদাহরণসহ ভালোভাবে পড়তে হবে। জানতে হবে কবি-সাহিত্যিকদের সাহিত্যকর্ম ও জীবনী সম্পর্কে। এসএসসি বোর্ড বইয়ের লেখক পরিচিতি বা সাহিত্যিক পরিচিতি অংশ পড়লে অনেকটা সহায়ক হবে। ব্যাকরণ থেকে ভাষা, বর্ণ, শব্দ, সন্ধি বিচ্ছেদ, কারক, বিভক্তি, উপসর্গ, অনুসর্গ, ধাতু, সমাস, বানান শুদ্ধি, পারিভাষিক শব্দ, সমার্থক শব্দ, বিপরীত শব্দ, বাগধারা, এককথায় প্রকাশ থেকে প্রশ্ন আসে।
সাহিত্য অংশ থেকেও অনেক প্রশ্ন আসে। সাহিত্য অংশে গল্প বা উপন্যাসের রচয়িতা, কবিতার লাইন উল্লেখ করে কবির নাম থেকে প্রশ্ন আসতে পারে। ছদ্মনাম, পত্রিকার নাম, সম্পাদকের নাম পড়তে হবে। এই সব গুলো বিষয় যে কোন গাইডে গুছিয়ে দেওয়া আছে। সেখান থেকে পড়তে পারেন।

ইংরেজিঃ
ইংরেজি অংশে অনেকেই দূর্বল থাকে। তবে এটা কঠিন কিছু না। ইংরেজি গ্রামারের Right forms of verb, Tense, Preposition, Parts of Speech, Voice, Narration, Spelling, Sentence Correction- থেকে প্রশ্ন আসে। Advance Learners by Chowdhury and Hossain বা অন্য যে কোন গ্রামার বই থেকে গ্রামারের এই টপিকস গুলো উদাহরণসহ পড়ুন। মুখস্থ করতে হবে Phrase and Idoims, Synonym, Antonym। ইংরেজি থেকে বাংলা অনুবাদ ও বাংলা থেকে ইংরেজিতে ট্রান্সলেশন ও পড়তে হবে। ২০১৫-১৯ সালের বিভিন্ন সরকারি নিয়োগ পরীক্ষার প্রশ্ন সমাধান করতে পারেন।

গণিত :
এই অংশে মার্কস পাওয়া তুলনামূলক ভাবে সহজ। প্রতিদিন ২-৩ ঘণ্টা গণিত প্রাকটিস করা দরকার। পাটিগণিতের পরিমাপ ও একক, ঐকিক নিয়ম, অনুপাত, শতকরা, সুদকষা, লাভক্ষতি, ভগ্নাংশ থেকে প্রশ্ন আসে। বীজগণিতের সাধারণ সূত্রাবলী থেকে প্রশ্ন থাকে। মুখে মুখে ও সূত্র প্রয়োগ করে সংক্ষেপে ফল বের করার প্র্যাকটিস করতে হবে। যাতে প্রশ্ন দেখামাত্রই সূত্র প্রয়োগ করে ফল বের করা যায়। জ্যামিতির জন্য ত্রিভুজ, চতুর্ভুজ, বর্গক্ষেত্র, রম্বস, বৃত্ত ইত্যাদির সাধারণ সূত্র ও সূত্রের প্রয়োগ প্রাকটিস করবেন। মাধ্যমিক পর্যায়ে পাঠ্যবই যেমন অষ্টম ও নবম-দশম শ্রেণির গণিত বই অনুসরণ করলে ভালো হবে। এছাড়া যে কোন গাইড বইয়ের গণিত অংশটুকু ভাল ভাবে করলেই হবে।

সাধারণ জ্ঞানঃ
বাংলাদেশ বিষয়াবলী থেকে প্রশ্ন বেশি আসে। এক্ষেত্রে বাংলাদেশের শিক্ষা, ইতিহাস, ভাষা আন্দোলন ও মুক্তিযুদ্ধ, ভূপ্রকৃতি ও জলবায়ু, সভ্যতা ও সংস্কৃতি, বিখ্যাত স্থান, বাংলাদেশের রাষ্ট্র ব্যবস্থা, অর্থনীতি, বিভিন্ন সম্পদ, জাতীয় দিবস থেকে প্রশ্ন আসতে পারে।
আর আন্তর্জাতিক অংশে বিভিন্ন সংস্থা, দেশ, মুদ্রা, রাজধানী, দিবস, পুরস্কার ও সম্মাননা, খেলাধুলা থেকে প্রশ্ন থাকে।

সাম্প্রতিক বিষয়ের জন্য মাসিক কারেন্ট এ্যাফেয়ার্স অবশ্যই পড়বেন।

কম্পিউটার ও আইসিটি থেকেও প্রশ্ন থাকে। আপনি কম্পিউটার ও আইসিটির বেসিক বিষয় গুলো ভালভাবে আয়ত্ব করবেন।
বিজ্ঞান, আইসিটি ও কম্পিউটার এর জন্য ২০১৫-১৯ সালের বিভিন্ন পরীক্ষায় আসা প্রশ্ন গুলো ভালভাবে পড়লে বেশ কিছু কমন পেতে পারেন।
এইভাবে পড়লে আশা করি আপনি সরকারি যে কোন চাকরির প্রিলিতে ভাল নম্বর পেয়ে প্রিলিমিনারি পাস করতে পারবেন। তবে আপনি চাইলে যিনি আরো ভাল জানেন বা নিজের পরামর্শ অনুযায়ী প্রস্তুতি নিতে পারেন। তবে যেভাবেই নেন না কেন আপনাকে পড়তে হবে পরিশ্রম করতে হবে। ৩০ বছর যে চাকরি করে আপনার জীবন চলবে সেই চাকরির জন্য অন্তত দৈনিক ৬-৮ ঘণ্টা করে পড়ালেখা করুন। পারলে আরো বেশি সময় দিন।

Read More- ১৬ তম শিক্ষক নিবন্ধন পরিক্ষার চূড়ান্ত প্রস্ততি যেভাবে নিবেন

পড়ুন, পরিশ্রম করুন, প্রার্থনা করুন এবং পড়ুন। আপনি যদি ভালভাবে পড়েন সেটা কোন না কোন জবে ঠিকই কাজে লাগবে। পড়ালেখা কখনো বৃথা যায় না। কোন না কোন ভাবে এর সুফল আপনি পাবেনই। ভাল প্রস্তুতির মাধ্যমেই ভাল পরীক্ষা দেওয়া যায়। আর পরীক্ষা ভাল হলে জব হওয়াটা সহজ। যারা নেগেটিভ কথা বলবে তাদের থেকে দূরে থাকুন। ভাল থাকবেন। আপনার জন্য শুভকামনা রইলো।

সংবাদটি ফেসবুকে শেয়ার করুন




Do NOT follow this link or you will be banned from the site!